কেমন ছিলেন দয়ার নবী ও তাঁর ছাহাবী

মোহাম্মদ নূরুল্লাহ্
দুষ্ট বুড়ির পথের কাঁটায়
আমার নবী কষ্ট পায়।
পথের কাঁটা না দেখিয়া
নবী বুড়িকে খুঁজতে যায়।

হত্যা করতে এসে ইহুদি
নবীর আপ্যায়নে,
পেট পুরে খেয়ে নষ্ট করলেন
বিছানাপত্র যে।

লজ্জা এবং ভীত হয়ে
ভোর হবার আগে
পলায়ন করলো সে ;
নবীকে না বলে।

তরবারিখানা লুকিয়েছে সে
বিছানারও নিচে।
বিছানার মল পরিষ্কার করে,
নবী আমার ছুটিলেন
অতিথির পানে।

“কত না কষ্ট পেয়েছে বেচারা,
গভীর রজনীতে।”
এ সব ভেবে অনুশোচনায়
কাতর হলেন যে।
অবশেষে …
অতিথিকে পেয়ে চাইলেন
ক্ষমা করজোড়ে।
তরবারিটি তুলে দিলেন
অতিথির হাতে।

এমন আচরণ পেয়ে ইহুদি
মুছলিম না হয়ে পারে ?

নবী আমার তৈরি করলেন
তেমনি ছাহাবী।
যুদ্ধের ময়দানে যা ঘটালেন
হযরত আলী রা.।
শত্রুর গলায় ছুরি চালাবেন
এমনি সময়ে ;
শত্রুর মুখের থুথু এসে
পড়লো মুখেতে।
অমনি তাকে ছেড়ে দিলেন
হযরত আলী রা.।

মুশরিক আশ্চর্য হয়ে
প্রশ্ন করিল তাঁকে।
কেন তুমি আমাকে
এমনি ছেড়ে দিলে ?

আছাদুল্লাহর জবাবে
মুশরিক বেজায় খুশি হয়ে–
মুছলিম না হয়ে কি পারে ?

যেমনি ছিলেন নবীজি
তেমনি তাঁর ছাহাবী!
যাদের ব্যবহারে মুগ্ধ ,
ছিল বিশ্ববাসী !
মোহাম্মদ নূরুল্লাহ্, ছায়ানীড়

Next Barisal banner ads

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *